Categories
কবিতা

সুকুমার মণ্ডলের গুচ্ছকবিতা

সম্পর্ক

বহুদূর পর্যন্ত ফাঁকা মাঠ। ছুটে আসছে
হতচকিত হাওয়া
নুয়ে পড়ছে বন, ডালপালা

এর নাম কি সম্পর্ক

***

স্পর্শ

শরীর দিয়ে আমাকে ছুঁয়েছ। মনখানি
বহুদূরে
অথচ সারারাত বাজি ফেটেছিল

মুখ দিয়ে কথা বলব। মনখানি
বহুদূরে

আলোর মালায় সেজে উঠবে অন্ধকার

***

পরাজয়

নিথর সন্ধ্যায় একটি লাইন
বসে আছে চুপচাপ। তারপর

যা-কিছু লিখেছি
সব কাটাকুটি, ব্যর্থ আঁচড়

মাঝরাত ঝুঁকে দেখে কুয়োটির
জল, গভীরতা
ঘুম নেই। একটি লাইন সেই
চুপচাপ বসে আছে
অন্ধকারে…

***

আয়োজন

সব ফুল ফুটিল না
কষ্ট করে বেঁচে আছি
আর তুমি বলো, কেন এই অপুষ্ট জীবন
শরীরে ফুলের কুঁড়ি স্নায়ুর ভেতর
আহা, তারই আয়োজনে

***

পুজো

অবশেষে ফাঁকা মাঠ। বিশ্বকর্মার পুজো
তুমি টুনি বাল্বের আলোয় এসে
ক্ষণিক দাঁড়ালে

মুহূর্তশেষের গান। মণ্ডপ থেকে
বেজে উঠছে ভাঙনের সুর

অনেকদিন একটাও কবিতা লিখিনি। আজ
সব অক্ষরগুলো সেজেগুজে
তোমার খোঁপায় বসেছে

8 replies on “সুকুমার মণ্ডলের গুচ্ছকবিতা”

আহা
কী গভীর লেখা
শান্তি ঝরে পড়ছে
আলো দেখছে দূরের পাহাড়

সাবলীল সুন্দর।
আনন্দদায়ক।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *