লেখক নয় , লেখাই মূলধন

পঙ্কজ চক্রবর্তীর কবিতা

ঈর্ষা

সফল বন্ধুর পাজামা দুলছে হাওয়ায়
সন্দেহ হয়
অদৃশ্য পাঞ্জাবীর সফলতা সেও নিশ্চিত আছে
অথবা সে নেই

নেই সফলতার মিথ্যে পোশাক ফুটপাত জুড়ে

লোভনীয় সংবাদ সব গুপ্তহত্যার উজ্জ্বল ছুঁরি
দুপুরের খাবারে সফল মুখের নোনা ছায়া বসে আছে
শুভবিবাহের দিকে চলেছে উটের দল মৃদু স্বপ্নদোষে
বুকের গভীরে তার অস্পষ্ট ছায়ামুখ
অথবা সে নেই

চিত্র: ইভস্ ট্যাঙ্গি

শুধু দুলে ওঠে মাঝে মাঝে ঈর্ষা পাজামার ফুল

নিসর্গ

বালির উপর দিয়ে হাঁটতে হাঁটতে মনে হল
অবলুপ্ত নদীর ছায়া
আমায় কি মিথ্যে পথ দেখাচ্ছে

শেরপার জীবন সম্পর্কে আমি কত কম জানি
দুটো পাহাড়ের মাঝখানে যখন এসে দাঁড়ায় মনখারাপ
যা আসলে মৃত্যুরই নামান্তর
আমি তাকে চিনলাম না

বালির উপর দিয়ে হাঁটতে হাঁটতে আমি দেখলাম
সামান্য জলের উপর স্বার্থপর মানুষের লুকোচুরি
নদী বাঁচবে না
তুমিও বাঁচবে না
ছোটখাটো কলকারখানা, রেললাইনে এই পথ একদিন
মধ্যাবিত্ত জীবনে মিশে যাবে

শেরপার জীবন সম্পর্কে আমি কত কম জানি
এইকথা বলবারও সুযোগ পাব না

পঙ্কজ চক্রবর্তীর কবিতা

আমাদের নতুন বই