Categories
কবিতা

অর্ঘ্য কমল পাত্রের গুচ্ছকবিতা

মধ্যরাত: একাকী

১.
শহরের শালবনে
একা-একাই

তারা গুনছি…

২.
যতদূর দেখতে পাচ্ছি,
যতদূর দেখছি
আমার হাত সেই অবধি
পৌঁছে যায়…

৩.
মধ্যরাতের হাইকু।

গান থামাও। শোনো
হার্টবিট

৪.
দাহ করে ফেরার পথে
শোক

শ্মশান ও বন্ধু চায়

৫.
ফাঁকা মাঠের পাশে
দাঁড়িয়ে
আমি পাতা কুড়োই

আর শুনি
নদীর এভাবে বয়ে যাওয়া

৬.
একা একা
একটা গাছের নীচে বসলে
নিজেকে মনে হয় উদ্বাস্তু।

৭.
দরজা এঁটে
পায়খানায় বসে
নিজের মনেই
স্বাধীনতার গল্প করি…

৮.
ঘষাঘষি শুরু হল সবে!
এইবার। আগুন জ্বলবে…

৯.
অনুভব হেঁটে যায়
সুদীর্ঘ
আলপথ ধরে…

১০.
তোমাদের

ড়ি
য়ে
রাখা
গমে, মুখ দেব?

আমি এতটাই মোরগ?

2 replies on “অর্ঘ্য কমল পাত্রের গুচ্ছকবিতা”

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *