উজ্জ্বল ঘোষের গুচ্ছকবিতা

গুরু

শ্মশানের চিতা জ্বলছে
একাগ্র রাত্রি নিচ্ছে পাঠ
চোখের মণিতে হচ্ছে হোম

আমাকেও জ্বলতে হবে
অযুত অন্ধকার অপেক্ষা করে আছে

ঘাসের অশ্রু

বন্ধু ঘাস, ওই অশ্রুটলমলটুকু আমার ঝুলিতে দাও
আমাকে দাও রাত্রিপোড়া সূর্যপ্রণাম
আমি ভূমিগন্ধী ফেরিওয়ালা,
চির আকাশসন্ধানী
যাকিছু ভাঙা, ছিন্ন, টুকরো তাকে
বয়ে নিয়ে ফিরি…
ওই অশ্রুটলমলটুকু আমার ঝুলিতে দাও

চাঁদের ব্যর্থতা

মুমূর্ষু শুয়ে থাকে চাঁদের নিচে
চাঁদকে হসপিটালের মতো দেখতে লাগে তার
পুরোনো দিনের কথা মনে পড়ে
গোল চাঁদ খেঁকো হয়ে অদৃশ্য হয়ে যায়
মুমূর্ষু শুয়ে থাকে সন্ত্রস্ত অমাবস্যার নিচে

ভোর

দিগন্তে পয়লা বৈশাখকে প্রসব করাচ্ছে
গৃহস্থ পৃথিবী
অন্ধকার জানালা থেকে চেয়ে আছে অসংখ্য চোখ
কোন্ আলোয় ভূমিষ্ঠ হবে বাছুরটি?
দিগন্ত থেকে গড়িয়ে পড়বে কি অমৃত দুধ
মুমূর্ষুর মুখে?

কলম

স্তন্যপায়ী নয়
মানুষ তো স্তন্যভোগী
বসুধার বুক শুকিয়ে কাঠ
চোখের ভেতর ডিম পাড়ে বালি
ওহ, কী অশ্রুমতী কলম
পৃথিবী সবুজ করবে বলে
এখনও ঝরিয়ে যাচ্ছে বিন্দু বিন্দু জল!

Spread the love
By Editor Editor কবিতা 11 Comments

11 Comments

  • অসাধারণ পরিবেশন।

    Sandip Goswami,
  • প্রতিটি কবিতা অসাধারণ ।তোর “কলম” এর জোড় ভাই অনবদ্য ।

    সরোজ মালিক,
  • অসাধারণ ভাই…ভালোবাসা

    Rajib Mukherjee,
  • খুব ভালো লাগলো.. আর ও এইরকম লেখার প্রত্যাশায় রইলাম…

    Sudipta Goswami,
  • সব ক’টি কবিতাই ভালো লাগল। পরিমিতিবোধ রয়েছে এটাও প্রশংসার্হ।

    jewel mazhar,
  • অনবদ্য। অসাধারণ।

    প্রদীপ রাজা,
  • ভালো লাগল উজ্জ্বল

    Snehasish Roy,
    • সব কটি কবিতা পড়লাম । ভালো লাগলো ।
      শেষ কবিতাটি অনবদ্য ।

      Pratap Mukhopadhyay,
  • ভাল লাগল কবিতাগুচ্ছ। বেশ ‘অশ্রুটলোমলো’। নববর্ষ প্রসব করা সূর্যের মতো সম্ভাবনায় উজ্জ্বল!

    স্বপ্ন কমল সরকার,
  • লেখাগুলি পড়ে মতামত জানানোর জন্য সকলকে আন্তরিক কৃতজ্ঞতা জানালাম।

    উজ্জ্বল ঘোষ,
  • কি অসাধারন লেখনী ভাই।। নিটোল, পরিমিত এবং অবশ্যই পরিপক্ব।। ভালোবাসা নিস

    Santimoy Laha,
  • Your email address will not be published. Required fields are marked *