Categories
চিত্রকলা

আঋব্ধকের চিত্রকর্ম

[আঁকা শেখেননি। ফর্মগতভাবে মূলত অ্যাবস্ট্র‍্যাক্ট নিয়ে কাজ করতেই পছন্দ করেন। এবং কন্টেন্ট হিসেবে পছন্দ নেচার, ল্যান্ডস্কেপ আর স্টিল লাইফ। প্রত্যক্ষ দৃশ্যের থেকে তার বাহ্যিক এলিমেন্টস সরিয়ে নিলে কেবল দৃশ্যের কঙ্কালই নয়, বরং কনসিল্ড ইমোশান প্রকট হয়ে পড়ে বলে চিত্রকর বিশ্বাস করেন। সেই প্রকৃতি অথবা ল্যান্ডস্কেপের ভেতরের ভায়োলেন্স, ইন্ডিফারেন্স, প্যাথোস, স্ক্রিমসের ব্যাপ্তিকে ক্যাপচার করতে যে কোনো ফিক্সড ফর্মেটিভ মেথডই যেন কম পড়ে যায়। ব্যর্থ হয়। তাই অবধারিতভাবে নেচার বা নেচারের সেই ডাইমেনশান অ্যাবস্ট্র‍্যাক্ট ফর্মের মাধ্যমেই ধরা দেয় তাঁর কাছে। ফলে ছবি হয়ে ওঠে দৃশ্যগত ইমোশান ও অভ্যন্তরীণ ইমোশানের একটি কালমিনেশান স্বরূপ।]

One reply on “আঋব্ধকের চিত্রকর্ম”

ছবিগুলোর জ্যামিতির আবহ বা কিউবিজমের গুঁড়ো কিছু সান্নিধ্য এসেছে বলে মনে হল।আপনি খুব সাবলীল ভাবে ছবিগুলো এঁকেছেন। মঞ্চের কোথাও বাড়তি মেদ নেই

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *